[Close]

৩ ম্যাচে যেটা পারেনি সেটা কি কোহলিদের বিরুদ্ধে আজ করতে পারবে মোস্তাফিজরা?


উদ্বোধনী ম্যাচ থেকে এখনো পর্যন্ত কোনো ম্যাচে জয়ের দেখা পায়নি মোস্তাফিজের মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। বর্তমান চ্যাম্পিয়ানরা শেষ ওভারে এসেই জয় থেকে ছিটকে যায়। তিনটি ম্যাচেই একই অবস্থা তাদের। তীরে এসেই তরী ডুবিয়ে ফেলে তারা। আজ চতুর্থ ম্যাচে তাদের প্রতিপক্ষ বিরাট কোহলির রয়্যাল চ্যালেঞ্জারস ব্যাঙ্গালুরু। বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ৮টায় ম্যাচটি শুরু হবে।

এ পর্যন্ত তিন ম্যাচে মোস্তাফিজের পারফরমেন্স নজরকাড়া। সেরা বোলিং ফিগার ২৪ রানে ৩ উইকেট। তিন ম্যাচে উইকেট শিকার করেছেন পাঁচটি। সর্বোচ্চ উইকেটশিকারীর তালিকায় ছয় নম্বরে। এই তিন ম্যাচের দুটিতে নাটকীয় শেষ ওভারটি করেছেন মোস্তাফিজ।

প্রথম ম্যাচে চেন্নাইয়ের বিপক্ষে শেষ ওভারে বল তুলে দেয়া হয় এই পেসারের হাতে। জয়ের জন্য চেন্নাইয়ের প্রয়োজন ৭ রান। স্ট্রাইকে কেদার যাদব। প্রথম তিন বলে কোনো রানই তুলতে দেননি তিনি। আশা বেড়ে যায় মুম্বাইয়ের। কিন্তু চতুর্থ বলেই হিসেব পাল্টে দিলেন যাদব। হাঁকান ছক্কা। পরের বলে বাউন্ডারি। এক বল বাকি থাকতেই মুম্বাইয়ের হারের সূচনা হলো।

দ্বিতীয় ম্যাচে শেষ ওভারটি করেন বেন কাটিং। জিততে সানরাইজার্স হায়দরাবাদের প্রয়োজন ১১ রান। প্রথম আর শেষ বলে ছক্কা হাকিয়ে জয় ছিনিয়ে নেয় সাকিবরা। দ্বিতীয় হার নিয়ে মাঠ ছাড়ে মুম্বাই।

তৃতীয় ম্যাচটি ছিল দিল্লি ডেয়ার ডেভিলসের বিপক্ষে। শেষ ওভারে আবার বল মোস্তাফিজের হাতে। এবার দিল্লির প্রয়োজন ১১ রান। প্রথম বলে জেসন রয় বাউন্ডারি হাঁকালেন আর পরের বলে ছক্কা! ম্যাচ তখনই শেষ। কিন্তু মোস্তাফিজ যেন হাল ছাড়েননি। পরের তিনটি বলই ডট দিলেন! টান টান উত্তেজনা দুই দলে। এক বলে প্রয়োজন ১ রান। কিন্তু হলো না এবারও। বল উড়িয়ে মারলেন রয়। জিতে গেলো দিল্লি। হারের হ্যাটট্রিক করলো মুম্বাই।

আজ কি হারের বৃত্ত থেকে বেরিয়ে যেতে পারবে মোস্তাফিজরা। শেষ ওভারের আতঙ্ক থেকে বেরিয়ে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে পারবে, তার জন্য অপেক্ষা করতে হবে সন্ধ্যা পর্যন্ত।

<>

Bangla24hour.com © 2017